সিংহ সম্পর্কে অজানা তথ্য -বিস্তারিত দেখুন এখানে ২০২৩

সিংহ হলো বনের একটি বড় বিড়াল। এবং ফিলিডে পরিবারের একজন সদস্য। সিংহ চিরকালই শক্তির প্রতীক। সাহস হিংস্রতা রাজকীয়তা স্থিতিশীলতা এবং মহিমার জন্য বিখ্যাত। এর ডাক নাম জঙ্গলের রাজা। সিংহের সৌন্দর্য এবং শক্তি সবই রয়েছে। সিংহর কিছু বিশেষ গুণ রয়েছে যা অন্যান্য পশুদের থেকে তাদেরকে আলাদা করে তোলে। আমাদের আজকের পোস্টে সিংহ সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য উপস্থাপন করা হলো। আপনারা যারা সিংহ সম্পর্কে জানতে চান তারা আমাদের সম্পূর্ণ পোস্টটি ভালোভাবে পড়ুন।-Facts About Lion

সিংহ গ্রহের একমাত্র সামাজিক বিড়াল তারা দলবদ্ধভাবে বসবাস করতে ভালোবাসে। একটি গ্রুপ বা দলকে বলা হয় “Prides”। একটি দলে সর্বোচ্চ ৪০ জন সদস্য নিয়ে গঠিত হতে পারে। তবে সাধারণত ১০ থেকে ১৫ জন সদস্য নিয়ে একটি গ্রুপ বা দল তারা মেইনটেইন করে। প্রতি দলে ৫ থেকে ৬টি স্ত্রী , তাদের শাবক এবং ৩-৪ টি পুরুষ সিংহ থাকে।

সিংহ শব্দের জনপ্রিয় প্রাণীদের মধ্যে একটি হিসেবে বিবেচনা করা হয় সারা বিশ্বে। বিশ্বের উনিশটি বিভিন্ন দেশে এটি জাতীয় প্রাণী হিসেবে গণ্য করা হয়। সিংহ আর্মেনিয়া, ইথিওপিয়া, কেনিয়া, লিবিয়া, লুক্সেমবার্গ এবং বুলগেরিয়ার জাতীয় প্রাণী হিসেবে ধরা হয়। এছাড়া বেলজিয়াম, উত্তর মেসি দুনিয়া, নেদারল্যান্ডস, নরওয়ে, সিঙ্গাপুর, শ্রীলংকা, এবং যুক্তরাজ্যে জাতীয় প্রাণী হিসেবে সিংহ ধরা হয়।

সিংহ হলো একমাত্র বিড়াল প্রজাতি যেটি যৌ*নভাবে দ্বিরুপ অর্থাৎ পুরুষরা মহিলাদের থেকে সম্পূর্ণ আলাদা এবং আপনি তাদের সহজেই চিনতে পারবেন।

সিংহ হলো বাঘের পরেই বিশ্বের দ্বিতীয় বৃহত্তম বিড়াল প্রজাতি। সাধারণত সিংহী রাই বেশিরভাগ শিকার করে থাকে এবং পুরুষ সিংহরা এলাকা রক্ষা করে এবং তাদের শাবকদের দেখাশোনা করে।

দেখুনঃ বাঘ সম্পর্কে অজানা তথ্য -বিস্তারিত জেনে রাখুন

সিংহের বেশিরভাগ শিকারি নারীদের ধারা গঠিত হয়ে থাকে। নারীরা বুদ্ধিমান শিকারের কৌশল ব্যবহার করে ফাঁদ পাতে এবং একটি দল হিসেবে কাজ করে থাকে। কিন্তু তাই বলে এই নয় যে পুরুষ সিংহরা শিকার করতে পারে না বা বুদ্ধিমান নয়। পুরুষ সিংহদের প্রায়শই বড় বড় শিকার বুদ্ধিমত্তার সাথে করতে দেখা গেছে।

সিংহের প্রাথমিক খাদ্য হচ্ছে মাংস তারা এক বারে 40 কেজি পর্যন্ত মাংস খেতে পারে। দৈনিক একটি পুরুষ সিংহ ৭ কেজি খাবার খায় এবং মহিলা সিংহ খায় 5 কেজির মতো।

সিংহ হচ্ছে বিড়াল পরিবারের প্রথম সদস্য যার একটি গোড়া লেজ রয়েছে। এরা বোনের সবচেয়ে উচ্চস্বরে গর্জনকারী পশু। একটি প্রাপ্তবয়স্ক পুরুষ সিংহের গর্জন ৮ কিলোমিটার অর্থাৎ ৫ মাইল দূর থেকে শোনা যায়। বিপরীতভাবে একটি বাঘের গর্জন প্রায় দুই মাইল পর্যন্ত শোনা যায়। একটি সিংহ স্থলে গতি অর্জন করতে পারে স্বল্প দূরত্বের জন্য ৮০ কিলোমিটার প্রতি ঘন্টা। প্রাপ্তবয়স্ক একটি সিংহ ৩৬ ফুট পর্যন্ত লাফ দিতে পারে।

প্রাপ্তবয়স্ক একটি পুরুষ আফ্রিকান সিংহ একক কামড়ে প্রতি বর্গ ইঞ্চিতে ১ হাজার পাউন্ড শক্তিতে কামড় দিতে সক্ষম। যদিও সিংহ বনের রাজা নামে পরিচিত কিন্তু তারা জঙ্গলে বসবাস না করে তৃণভূমি এবং সমভূমিতে বসবাস করতে পছন্দ করে। তাদের চোয়াল এক ফুট পর্যন্ত খুলতে পারে যা মানুষের মাথার চেয়ে বড় এ জন্যই বলা হয় প্রাণী জগতের সবচেয়ে বড় মুখমণ্ডলীর মধ্য একটি হচ্ছে সিংহ। সিংহ তাদের বেশিরভাগ শিকার রাতে করে এবং তারা ছয় গুণ স্পষ্ট দেখতে পায়।

আরো দেখুনঃ 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *