Your Website
Mesut Özil

মেসুত ওজিল কত টাকার মালিক

মেসুত ওজিল, ডাকনাম ওজিল। জন্ম ১৫ই অক্টোবর ১৯৮৮ সালে। জন্মস্থান গেলসেনকির্চেন পশ্চিম জার্মানি। উচ্চতা ৫ ফুট ১১ ইঞ্চি,পেশা প্রফেশনাল ফুটবলার। ধর্ম ইসলাম, তার বাবার নাম মোস্তফা ওজিল, মেসেজ ওজিল বিয়ে করেন সাথে জুন ২০১৯ সালে। মেসুত ওজিল যার শৈল্পিক ফুটবলে বিমৃত হন না, বাতিল লাগে খোঁজেও এখন ফুটবলপ্রেমী পাওয়া অসম্ভব। ওই জেলার শফিক ফুটবলের বিবাহিত হয়ে ফুটবল বিশ্বের গ্রেডরাও নানান সময়ে নানান সময় নানান রকমের মন্তব্যে ওজিলকে প্রশংসার জোয়ারে ভাসান। Mesut Özil koto takar malik

নিজে মুসলিম হয়ে মুসলিমদের প্রতি ভালোবাসা দেখানোর কম মূল্য চুকাতে হয়নি এই মিডফিল্ডার কে। নিজেরোজিত ও অসহায় মুসলমানদের পক্ষে কথা বলে বারবার এই চক্ষু কোষে হয়েছে পশ্চিমা বিশ্বে । তুরস্কের শীর্ষ ক্লাব ফেনেরবাচের এই জার্মানি ফুটবলার আলোচনায় এলেন মাহে রমজানের রোহিঙ্গা, সিরিয়ান, সোমালিয়ান শিশুদের জন্য ১ লাখ ২০৭৭০ মার্কিন ডলার দান করেন।

যার একটা অংশ আসবে বাংলাদেশের রোহিঙ্গাদের ক্যাম্পেও। এমন আলোচনার পর বাংলাদেশ সহ পুরো মুসলিম বিশ্বের গর্ব ওজিল সমালোচনার ঝড় তুলে সোশ্যাল মিডিয়ায়। ফুটবলের পতিতার ভালোবাসা এতটাই গভীর ছিল যে সে ঘুমানোর সময়ও ফুটবলের সাথে নিয়ে ঘুমাতে পছন্দ করত। তার এই ভালোবাসা দেখে ভাই মাতলু ওজিল ফুটবলের বিভিন্ন কলাকৌশল শিক্ষাদিত।

ওজিল জার্মান যুব দলের খেলার সময় ইঙ্গিত করেছিল সে জার্মানির হয়ে খেলতে চায়। এক সাক্ষাৎকারে ওজিল বলেছিল জার্মানিতে আমাদের তৃতীয় প্রজন্ম আমার বাবা এই জার্মানিতে বেড়ে উঠেছেন তুরস্ক সর্বদায় আমার জন্য একটি বিশেষ দেশ কিন্তু কখনোই আমি জার্মানির বিষয়ে খেলার জন্য সংশয় ছিলাম না। ২০১০ বিশ্বকাপ ফুটবলে তিনি প্রতিটি খেলায় মূল একাদশে ছিল।

পেশাফুটবলার
মাসিক আয়২ কোটি ৪০ লক্ষ টাকা
বাৎসরিক আয়৩০ কোটি টাকা
মোট সম্পদ১০ হাজার মিলিয়ন ডলার
জন্মস্থানগেলসেনকির্চেন পশ্চিম জার্মানি

ওজিলে ক্যারিয়ারে ছেড়ার সময় ছিল ২০১৪ সালে ব্রাজিল বিশ্বকাপে তারকাবহুল দল নিয়ে হট ফেভারিট আর্জেন্টিনাকে হারিয়ে বিশ্বকাপ চ্যাম্পিয়ন হয় জার্মানি।বিশ্বকাপ যে এই দলের অন্যতম বর্ষা ছিল মাছ মাটি নির্ভরতার প্রতীক ওজিল। শুধু বিশ্বকাপ নয় ২০১৪ সালে বাছাই পর্বে ৮ গোল করার মাধ্যমে সর্বোচ্চ গোলদাতা হিসেবে বিশেষ মর্যাদা লাভ করে। আন্তর্জাতিক ফুটবলকে বিদায় জানালেও ক্লা ফুটবলে এখনো খেলে যাচ্ছেন মেসেজ ওজিল ফুটবলের পাশাপাশি মানবিক কাজের মাধ্যমে উঠে আসেন ওজিল।

ইনকাম, তিনি প্রতি মাসে বেতন পান প্রায় ২৪ মিলিয়ন ডলার। তিনি বিভিন্ন কোম্পানির অ্যাড করে আয় করেন বছরে ১২০ মিলিয়ন ডলার। এখন তার মোট সম্পদের পরিমাণ প্রায় ১০ হাজার মিলিয়ন মার্কিন ডলার। প্রতিদিন তার সম্পদের পরিমাণ বেড়েই চলছে। তিনি বর্তমানে লন্ডনে থাকেন বলে জানা গেছে। লন্ডনে তার একটি নিজের বাড়ি আছে। সম্প্রতি জানা যায়বাড়িটির মূল্য প্রায় ৫০০ মিলিয়ন ডলারের বেশি।তার একটি আকর্ষণীয় গাড়ি আছে যা সারা পৃথিবীতে মাত্র একটি আছে। গাড়িটির দাম ও কোন কোম্পানির তা এখন প্রকাশ করা হয়নি। তার একটি প্রাইভেট জেট বিমান ও আছে বিমানটওর দাম প্রায় ২৫ মিলিয়ন ডলার।

আরো দেখুনঃ 

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Scroll to Top